স্পেনের অর্থনীতি

স্পেনের অর্থনীতি একটি অত্যন্ত উন্নত সামাজিক বাজার অর্থনীতি[1] এটি মনোনীত জিডিপি অনুযায়ী বিশ্বের চতুর্দশ বৃহত্তমইউরোপের পঞ্চম বৃহত্তম অর্থনীতি। স্পেন ইউরোপীয় ইউনিয়নইউরোজোনের সদস্য, সেইসঙ্গে অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও উন্নয়ন সংস্থা ও বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থার সদস্য। স্পেন ২০২১ সালে বিশ্বের ২০তম বৃহৎ রপ্তানিকারক এবং ষোড়শ বৃহত্তম আমদানিকারক ছিল। স্পেন জাতিসংঘের ২০১৯ সালের মানব উন্নয়ন সূচকে ২৫তম এবং বিশ্বব্যাংকের ২০২০ সালের মাথাপিছু জিডিপি-এর তালিকায় ৪০তম স্থানে রয়েছে। দ্য ইকোনমিস্টের মতে ২০০৫ সালে স্পেনে জীবনযাপনের মান বিশ্বের ১০তম সর্বোচ্চ ছিল।[2] অর্থনৈতিক কার্যকলাপের প্রধান কিছু ক্ষেত্র হল মোটরগাড়ি শিল্প, চিকিৎসা প্রযুক্তি, রাসায়নিক, জাহাজ নির্মাণ, পর্যটনবস্ত্র শিল্প

২০০৭-২০০৮ সালের আর্থিক সঙ্কটের পর, স্প্যানিশ অর্থনীতি মন্দার মধ্যে পড়েছিল, নেতিবাচক সামষ্টিক অর্থনৈতিক কর্মক্ষমতার একটি চক্রে প্রবেশ করেছিল। ইইউ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গড় তুলনায়, স্প্যানিশ অর্থনীতি পরে মন্দার মধ্যে প্রবেশ করেছিল (অর্থনীতি তখনও ২০০৮ সালের মধ্যে বৃদ্ধি পেয়েছিল), কিন্তু এটি সেখানে দীর্ঘস্থায়ী ছিল। ২০০০-এর দশকের অর্থনৈতিক উত্থান বিপরীত হয়েছিল, যা স্পেনের এক চতুর্থাংশেরও বেশি শ্রমশক্তিকে ২০১২ সালের মধ্যে বেকার হয়ে পরেছিল। সমষ্টিগতভাবে, ২০০৯-২০১৩ অর্থবর্ষে স্প্যানিশ জিডিপি প্রায় ৯% সংকুচিত হয়েছিল।[3] অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নতি ২০১৩-২০১৪ অর্থবর্ষ নাগাদ হতে শুরু করে। ততদিনে, দেশটি রেকর্ড বাণিজ্য ঘাটতি হ্রাস করতে সক্ষম হয়েছিল, যা আকস্মিক বৃদ্ধির বছরগুলিতে ঘটেছিল।[4] দেশটি ২০১৩ সালে একটি বাণিজ্য উদ্বৃত্ত অর্জন করেছিল, তিন দশক ধরে বাণিজ্য ঘাটতি চলার পর।[4] উদ্বৃত্ত ২০১৪ সাল থেকে ২০১৫ সালের মধ্যে শক্তিশালী হতে থাকে।[5]

তথ্যসূত্র

  1. Official report on Spanish recent Macroeconomics, including tables and graphics (পিডিএফ), La Moncloa, ২৬ জুলাই ২০০৮ তারিখে মূল (পিডিএফ) থেকে আর্কাইভ করা, সংগ্রহের তারিখ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  2. "The Economist Intelligence Unit's quality-of-life index" (পিডিএফ)The Economist। সংগ্রহের তারিখ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  3. "El PIB español sigue sin recuperar el volumen previo a la crisis" (স্পেনীয় ভাষায়)। Expansión। ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  4. Bolaños, Alejandro (২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪)। "España logra en el año 2013 el primer superávit exterior en tres décadas"El País। সংগ্রহের তারিখ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
  5. Bolaños, Alejandro (২০১৬-০২-২৯)। "El superávit exterior de la economía española supera el 1,5% del PIB en 2015"El País (স্পেনীয় ভাষায়)। আইএসএসএন 1134-6582। সংগ্রহের তারিখ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২
This article is issued from Wikipedia. The text is licensed under Creative Commons - Attribution - Sharealike. Additional terms may apply for the media files.